সর্বশেষ আপডেট
অপেক্ষা করুন...
বৃহস্পতিবার, ২১ আগস্ট, ২০১৪

সম্প্রতি প্রকাশিত এক গবেষণায় এমনই তথ্য পাওয়া গেছে যে - যৌন আসক্তিদের মানসিকতা মাদকাসক্তদের মতোই।যদিও, এ বিষয়ে এখনও বিবাদ রয়েছে। আদৌ কি, যে মানুষদের পর্নো ফিল্ম দেখার নেশা হয়েছে তাদের মানসিকতা একজন চেন স্মোকারের মতোই?

ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকেরা প্রায় ১৯ জন মানুষের মস্কিষ্কের গবেষণা করছেন। যারা পর্নো ফিল্ম নিয়মিত দেখেন। এই গবেষণায় দেখা গেছে, পর্নো ফিল্ম দেখার সময় মস্কিষ্কের সেই অংশই সক্রিয় হয় যা মাদকের নেশাগ্রস্ত ব্যক্তির পছন্দের মাদক দেখলে হয়। গবেষণায় এমন দু’জন রয়েছেন যারা কাজের সময় পর্নো ফিল্ম দেখছিলেন বলেই তাদের চাকরি ছাড়তে হয়েছে।

ক্যামব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ডক্টর বেলেরি বুন জানিয়েছেন, এটি এই বিষয়ের উপর প্রথম গবেষণা। ফলাফলের উপর ভিত্তি করে এটা এখনও বলা সম্ভব নয় যে, একে যৌনতার নেশা বলা যায় কিনা। তিনি জানান, একজন ব্যক্তি যত কম বয়সে নেশাজাতীয় পদার্থের ব্যবহার শুরু করেন, তার ক্ষেত্রে নেশাগ্রস্ত হওয়ার সম্ভাবনা তত বেশি।
পর্নোগ্রাফির নেশা থেকে মুক্তির উপায়(ভিডিওটি দেখুন )
অ্যাসোসিয়েশন ফর ট্রিটমেন্ট অফ সেক্স অ্যডিকশন অ্যান্ড কম্পলসিভিটি’র পলা হাল জানিয়েছেন, ‘ইন্টারনেটের মাধ্যমে এখন ২৪ ঘণ্টাই সেক্সের সামগ্রী পাওয়া যায়। এমন যুবকের সংখ্যা বেড়ে যাচ্ছে, যারা পর্নো সামগ্রীর ফলে নিজের উপার্জন খরচ করে ফেলছে।’ যদিও তিনি জানান, এই ধরনের লোকেদের যৌন নেশাগ্রস্ত বলা উচিত হবে না। কারন এখনও এই বিষয়ে সঠিক গবেষণা করা হয়নি।

তবে যে কোনো সমস্যারই পেছনেই একটা যৌক্তিক কারণ থাকে। অনেক সময় কারনটা খুঁজে পাওয়া যায় না আবার অনেক সময় পাওয়া যায়। যে গুলির কারণ মেডিকেল টেস্টে খুঁজে পাওয়া যায় না সেখানে অ্যালোপ্যাথি ব্যর্থ আর লক্ষণ ভিত্তিক একমাত্র অব্যর্থ চিকিত্সা হলো হোমিওপ্যাথি। তাই কোনো কারণ পান বা না পান এ ধরনের কোনো সমস্যায় আক্রান্ত হলে অভিজ্ঞ একজন হোমিওপ্যাথের সাথে যোগাযোগ করুন এবং চিকিত্সা নিন।
আধুনিক হোমিওপ্যাথি, ঢাকা
ডাক্তার হাসান; ডি. এইচ. এম. এস(BHMC)
যৌন ও স্ত্রীরোগ, লিভার, কিডনি ও পাইলসরোগ বিশেষজ্ঞ হোমিওপ্যাথ
১০৬ দক্ষিন যাত্রাবাড়ী, শহীদ ফারুক রোড, ঢাকা ১২০৪, বাংলাদেশ
ফোন :- +88 01727-382671 এবং +88 01922-437435
স্বাস্থ্য পরামর্শের জন্য যেকোন সময় নির্দিধায় এবং নিঃসংকোচে যোগাযোগ করুন।

0 comments:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

 
[X]